কোটালীপাড়া (গোপালগঞ্জ) সংবাদদাতা:
গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়া উপজেলার সাদুল্লাপুর ইউনিয়নের ভুতেরবাড়ি গ্রামের দরিদ্র কৃষক সুকদেব বালাকে বসসবাসের জন্য ঘর নির্মাণ করে দিয়েছেন সমাজসেবক বিমল সিকদার।

রবিবার সমাজসেবক বিমল সিকদার তার লোকজন নিয়ে সুকদেব বালার বাড়িতে গিয়ে বসবাসের ঘর নির্মাণ করে দেন। এ সময় যুবলীগ নেতা সুমন বিশ্বাস, ছাত্রলীগ নেতা দেবাংশু মল্লিক, লিমন হালদার, মানিক চক্রবর্তীসহ এলাকার গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

কৃষক সুকদেব বালা বলেন, আমার একটা জরাজীর্ণ বসবাসের ঘর ছিল। ওই ঘরে আমি, আমার স্ত্রী ও আমার এক প্রতিবন্ধী সন্তান নিয়ে বসবাস করতাম। একটু ঝড় বৃষ্টি হলেই ঘরের ভিতর পানি জমে যেত। আমরা সকলে ভিজে যেতাম।

ভেজা অবস্থায়ই সারারাত পরিবার নিয়ে কাটাতে হতো। সমাজসেবক বিমল সিকদার খবর পেয়ে আমাকে একটা বসবাসের ঘর নির্মাণ করে দিয়েছেন। এখন আমি পরিবার পরিজন নিয়ে ভালো ভাবে বসবাস করতে পারবো। আমি সমাজসেবক বিমল সিদকারকে ধন্যবাদ জানাই। সৃষ্টিকর্তা যেন তার মঙ্গল করেন।

সমাজসেবক বিমল সিকদার বলেন, আমার পাশ্ববর্তী গ্রামে এক দরিদ্র কৃষক তার স্ত্রী ও প্রতিবন্ধী সন্তান নিয়ে জনজীর্ণ ঘরে বসবাস করে আসছে। আমি এমন খবর পেয়ে ওই দরিদ্র কৃষকের বাড়িতে যাই। যেয়ে দেখি সত্যিই তারা জরাজীর্ণ ঘরে বসবাস করে। ঝড়, বৃষ্টি হলেই ঘরের ভিতর পানি জমে যায়।

আমি আমার লোকজন নিয়ে গত রবিবার দরিদ্র কৃষক সুকদেব বালাকে একটা বসবাসের ঘর নির্মাণ করে দিয়েছি। এখন দরিদ্র কৃষক সুকদেব বালা তার পরিবার পরিজন নিয়ে ভালোভাবে বসবাস করতে পারবে। আমি চাইবো সমাজের সকল বিত্তশালীরা যেন এ ভাবে মানবতার সেবায় এগিয়ে আসে।